ভোলার পুলিশ সুপারকে তলব করেছেন হাইকোর্ট

রাজধানীর তেজগাঁও থানার একটি অস্ত্র মামলার আসামি জুলহাস মিয়া বেঁচে আছে কি না সেই বিষয়ে যথাযথভাবে প্রতিবেদন দাখিল না করায় ভোলার পুলিশ সুপার (এসপি) কে তলব করেছেন হাইকোর্ট।

আগামী ২০ আগস্ট তাকে স্বশরীরে হাজির হয়ে এ বিষয়ে ব্যাখ্যা দিতে বলা হয়েছে।

বুধবার বিচারপতি জাহাঙ্গীর হোসেন সেলিম ও বিচারপতি মো. রিয়াজ উদ্দিন খানের হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

জুলহাস মিয়া মারা গেছেন কি না সেই বিষয়ে এর আগে ঢাকা মহানগর পুলিশ (ডিএমপি) কমিশনার ও ভোলার এসপিকে প্রতিবেদন দিতে নির্দেশ দেন হাইকোর্ট। এর মধ্যে ডিএমপি কমিশনার যথাযথ আইনগত প্রক্রিয়া অনুসরণ করে প্রতিবেদন দাখিল করেন।

কিন্তু ভোলার এসপি আইনগত প্রক্রিয়া অনুসরণ না করে সরাসরি বিচারপতির নামে চিঠি দিয়ে জুলহাসের বিষয় অবহিত করেন। এই চিঠি দেখে আদালত অসন্তোষ প্রকাশ করেন এবং তাকে তলব করেন।

অন্যদিকে ডিএমপি কমিশনারের দেওয়া প্রতিবেদনে বলা হয়, জুলহাস ১০ থেকে ১২ বছর আগে পরিবার নিয়ে ভোলায় চলে গেছে। আর ভোলার এসপির দেয়া চিঠিতে বলা হয়, ভোলায় জুলহাস নামে কোনো ব্যক্তি নেই এবং তাকে খুঁজে পাওয়া যায়নি।

আজ আদালতে রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল জাহিদ সারোয়ার কাজল। অপর পক্ষে ছিলেন আইনজীবী মো. আশরাফুল আলম নোবেল।

সৌজন্য: চ্যানেল আই অনলাইন